গ্যাস সিলিন্ডারের মেয়াদ শেষ, বুঝবেন যেভাবে

জিএস নিউজ ডেস্কজিএস নিউজ ডেস্ক
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ১২:৫৮ পিএম, ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

যেসব এলাকায় গ্যাস সংযোগ নেই তাদের একমাত্র ভরসাই হলো সিলিন্ডার গ্যাস। তাছাড়া এখনতো দোকানপাটেও দেদারছে ব্যবহার হচ্ছে সিলিন্ডার। কিন্তু এই সিলিন্ডার গ্যাস সুবিধা দিলেও এর ভয়াবহতা কিন্তু কম নয়। গত কয়েক বছরে অসংখ্য প্রাণ হারিয়েছে শুধু এই গ্যাসের সিলিন্ডার বিষ্ফোরণ হয়ে।

সর্বশেষ চকবাজারের ঘটনাতো সবারই জানা।

গ্যাসের সিলিন্ডার বিষ্ফোরণ হওয়ার অন্যতম প্রধান কারণ মেয়াদউত্তীর্ণ সিলিন্ডার ব্যবহার করা। প্রত্যেকটি সিলিন্ডারের একটি নির্দিষ্ট মেয়াদ আছে এবং এই মেয়াদসীমা শেষ হয়ে গেলে সিলিন্ডার তার চাপ ক্ষমতা হারায়।

সাধারণত গ্যাসকে উচ্চ চাপে তরলীকরণ করে সিলিন্ডারে প্রবেশ করানো হয়। তাই কোন মেয়াদউত্তীর্ণ সিলিন্ডারে যদি উচ্চ চাপে গ্যাস ঢুকানো হয় তবে উক্ত সিলিন্ডার গ্যাসের চাপ রক্ষা করতে না পেরে বিষ্ফোরিত হয়ে যায়।

তাই মেয়াদ উত্তীর্ণ গ্যাস সিলিন্ডার ঘরে রাখা আর বোমা রাখার মধ্যে কোন পার্থক্য নেই। কিন্তু মেয়াদ উত্তীর্ণ গ্যাস সিলিন্ডার চিনবেন কীভাবে?

সাধারণভাবে সিলিন্ডারের গায়ে লেখা দেখে বোঝার উপায় নেই এর মেয়াদকাল সম্পর্কে। কারণ এখানে কিছু সাংকেতিক পদ্ধতি ব্যবহার করা হয় যেটা দেখে কিছুই বোঝা যায় না।

তাহলে আমরা চিনব কিভাবে যে সিলিন্ডার মেয়াদ উত্তীর্ণ।

ছবিতে মার্ক করা কালো রংগের লেখাটাই হল এক্সপায়ার ডেট। এখানে A,B,C,D সংকেত দিয়ে বোঝানো হয়েছে।

A= বছরের প্রথম তিন মাস যেমন জানুয়ারি, ফেব্রুয়ারি, মার্চ।

B= তার পরের তিন মাস যেমন, এপ্রিল, মে, জুন।

একইভাবে C,D দ্বারা ক্রমানুসারে বাকি ছয় মাসকেই বোঝানো হয়।

আর সবার শেষে বছরের শেষ দুই ডিজিট থাকে, অর্থাৎ C13 (2013 ইং) যদি C18 থাকে তার মানে হল ২০১৮ সালের জুলাই, আগস্ট, অথবা সেপ্টেম্বর মাসেই আপনার সিলিন্ডারের মেয়াদ বা (expire date) হবে।

অর্থ্যাৎ
A = মার্চ এ মেয়াদ শেষ হবে
B = জুন এ মেয়াদ শেষ হবে
C = সেপ্টেম্বর এ মেয়াদ শেষ হবে
D = ডিসেম্বর এ মেয়াদ শেষ হবে

আপনার মতামত লিখুন :